স্ত্রীর পরকিয়ার বলি হলেন রথীশ


, | Published: 03:39 PM, April 04, 2018

IMG

অবশেষে নিখোঁজের ৫ দিন পর রংপুরের বিশেষ পিপি রথিশ চন্দ্র ভৌমিক বাবু সোনার মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, স্ত্রীর পরকিয়ার বলি হয়েছেন রথিশ চন্দ্র ভৌমিক। এ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে স্ত্রী দীপা ভৌমিক ও তার প্রেমিক কামরুল ইসলাম জাফরীসহ ৪ জনকে গ্রেপ্তার করেছে র্যাব।

মঙ্গলবার রাতে বাবু সোনার স্ত্রী দীপা ভৌমিককে নগরীর আলম নগর বাবু পাড়া বাসা থেকে আটক করে পুলিশ। জিজ্ঞাসাবাদে সে জানায়, স্বামীর মৃতদেহ তাজহাট মোল্লাপাড়া মহল্লায় তার কথিত প্রেমিক কামরুল ইসলাম জাফরীর বড় ভাই খাদেমুল ইসলাম জাফরীর নির্মাণাধীন বাসায় আছে।

মঙ্গলবার দিবাগত রাত ২টায় তাজহাট মোল্লাপাড়া মহল্লার নির্মাণাধীন বাসা থেকে বাবু সোনার বস্তা বন্দি মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। পুলিশ জানায়, স্ত্রী দীপা ভৌমিক ও তার প্রেমিক কামরুল ইসলাম জাফরীর যোগসাজসেই বাবু সোনাকে হত্যা করা হয়েছে। তারা দুজনেই তাজহাট উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক।

নিহতের ছোট ভাই সাংবাদিক সুশান্ত ভৌমিকসহ স্বজনরা পায়ের জুতা দেখে বাবু সোনার মৃতদেহ সনাক্ত করেন। মৃতদেহ উদ্ধারের পর রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। গত শুক্রবার সকালে বাড়ি থেকে বের হয়ে এক ব্যক্তির সঙ্গে মোটরসাইকেলে করে শহরের দিকে রওনা হয়েছিলেন রথীশ।

এরপর থেকে তার সন্ধান ছিল না। নিখোঁজের পর তার সহকর্মীরা ধারণা করছিলেন, জামায়াত কিংবা সন্ত্রাসীরা তাকে অপহরণ করেছে। পরে গত সোমবার তাজহাট উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক কামরুল ইসলাম ও মতিয়ার রহমানকে আটকের পর বেরিয়ে আসে প্রকৃত তথ্য।










জাতীয় বিভাগের আরও সংবাদ